17-Mon-Dec-2018 07:42am

Position  1
notNot Done

বিএনপির মনোনয়ন পেলেন যারা

Goni al-maruf

2018-11-30 17:00:23

দ্য পলিটিক্স রিপোর্ট: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অধিকাংশ আসনে একাধিক প্রার্থী রেখে ধানের শীষের প্রাথমিক মনোনয়নের প্রত্যয়নপত্র দেওয়া শুরু করেছে বিএনপি। প্রাথমিকভাবে বেশ কিছু আসনের প্রার্থী তালিকা পাওয়া গেছে, যাদের মধ্যে সিংহভাগই ২০০৮ সালের জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিয়েছেন।
সোমবার বিকালে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে কারাবন্দি খালেদা জিয়ার জন্য তিনটি আসনের মনোনয়নের চিঠি তার প্রতিনিধিদের হাতে হস্তান্তরের মধ্যে দিয়ে এ কার্যক্রমের সূচনা হয়। কারাগারে থাকা খালেদা জিয়া এবার মনোনয়ন নিয়েছেন ফেনী-১, বগুড়া-৬ ও বগুড়া-৭ আসন থেকে।
তার প্রতিনিধি হিসেবে বগুড়া জেলা বিএনপির সভাপতি সাইফুল ইসলাম এবং চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য হেলালুজ্জামান তালুকদার লালুর হাতে প্রত্যয়নের চিঠি তুলে দেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
নির্বাচন কমিশনে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সময় দলীয় মনোনয়নের এই প্রত্যয়নপত্রও জমা দিতে হবে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া কারাগারে এবং ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান বিদেশে থাকায় এই প্রত্যয়নপত্র দেওয়া হবে মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের স্বাক্ষরে।
যারা পেয়েছেন মনোনয়ন
রংপুর বিভাগ        
পঞ্চগড়-১: নওশাদ জমির, পঞ্চগড়-২: তাসনিয়া প্রধান (জাগপা)। ঠাকুরগাঁও-১: মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, ঠাকুরগাঁও-৩: জাহিদুর রহমান। ঠাকুরগাঁও-২ পাবে জামায়াত। দিনাজপুর-১: মঞ্জুরুল ইসলাম ও মামুনুর রশিদ , দিনাজপুর-২: সাদিক রিয়াজ, দিনাজপুর-৩:  সৈয়দ জাহাঙ্গীর ও মোজাম্মেল দোলন, দিনাজপুর-৪: হাফিজুর রহমান ও আক্তারুজ্জামান মিয়া, দিনাজপুর-৫: রেজাউল হক ও জাকারিয়া বাচ্চু, দিনাজপুর-৬: লুৎফর রহমান মিন্টু ও শাহীনুর ইসলাম ম-ল।
রংপুর-১: মোকাররম হোসেন সুজন, রংপুর-২: ওয়াহেদুজ্জামান মামুন ও মোহাম্মদ আলী, রংপুর-৩: মোজাফফর আহমেদ ও রিতা রহমান, রংপুর-৪: এমদাদুল হক ভরসা, রংপুর-৫: সোলাইমান আলম ও ড. মমতাজ, রংপুর-৬: তাইফুল ইসলাম।
লালমনিরহাট-১: মোশারফ রহমান
নীলফামারী-১: ন্যান্সি রহমান/রফিকুল ইসলাম, নীলফামারী-৪: বেবী নাজনিন ও আমজাদ হোসেন।
কুড়িগ্রাম-১: সাইফুর রহমান রানা/তার স্ত্রী শামীমা রহমান আপন, কুড়িগ্রাম-২: সোহেল হোসেন কায়কোবাদ/আবু বকর সিদ্দিক, কুড়িগ্রাম-৩: তাজবিরুল ইসলাম/আব্দুল খালেক, কুড়িগ্রাম-৪: মোখলেছুর রহমান/আজিজুর রহমান।
গাইবান্ধা-১: খন্দকার জিয়া ইসলাম/মাজহারুল ইসলাম, গাইবান্ধা-২:মাহমুদুন্নবী টুটুল/আহাদ আহমেদ, গাইবান্ধা-৩: মইনুল হাসান সাদিক, গাইবান্ধা-৪: ওবায়দুল হক/ফারুক আলম, গাইবান্ধা-৫: হাসান আলী/ফারুক কবীর/মঞ্জুরুল ইসলাম। লালমনিরহাট-৩: আসাদুল হাবিব দুলু।

খুলনা বিভাগ
সাতক্ষীরা-১: হাবিবুল ইসলাম হাবিব, সাতক্ষীরা-২: আবদুল খালেদ (জামায়াত), সাতক্ষীরা-৩: রবিউল বাশার, সাতক্ষীরা-৪: গাজী নজরুল ইসলাম।
ঝিনাইদহ-১: আসাদুজ্জামান আসাদ/আবদুল ওয়াহাব, ঝিনাইদহ-২: আবদুল মজিদ/এস এম মশিউর রহমান, ঝিনাইদহ-৩: মেহেদী হাসান রনি/মনির খান, ঝিনাইদহ-৪: সাইফুল ইসলাম ফিরোজ/শহীদুজ্জামান বেল্টু।

রাজশাহী বিভাগ
রাজশাহী-১: আমিনুল হক, রাজশাহী-২: মিজানুর রহমান মিনু, রাজশাহী-৩: শফিকুল হক মিলন, রাজশাহী-৪: আবু হেনা, রাজশাহী-৫: নাদিম মোস্তফা, রাজশাহী-৬: আবু সাইদ চাঁন।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১: শাহজাহান মিয়া ও বেলালি বাকি চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২: আনওয়ারুল ইসলাম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩: আবদুল ওহেদ/হারুন অর রশিদ।

নাটোর-১: তাইফুল ইসলাম টিপু/কামরুন্নাহার শিরীন, নাটোর-২:  রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু/সাবিনা ইয়াসমিন ছবি, নাটোর-৩: দাউদার মাহমুদ/ আনোয়ার ইসলাম আনু, নাটোর-৪: আবদুল আজিজ।
বগুড়া-৬: বেগম খালেদা জিয়া, বগুড়া-৭: বেগম খালেদা জিয়া।
জয়পুরহাট-১: ফয়সাল আলীম/ফজলুর রহমান, জয়পুরহাট-২: আবু ইউসুফ খলিখুর রহমান/গোলাম মোস্তফা।
পাবনা-৫: শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস।
নওগাঁ-১: সালেক চৌধুরী/মোস্তাফিজুর রহমান, নওগাঁ-২: শামসুজ্জোহা খান/খাজা নজিবুল্লাহ চৌধুরী, নওগাঁ-৩ রবিউল আলম বুলেট/পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী, নওগাঁ-৪শামসুল ইসলাম আলম/একরামুল বারী টিটো, নওগাঁ-৫: জাহিদুল ইসলাম ধলু/নজমুল হক সনি, নওগাঁ-৬: আলমগীর কবির/রেজাউল ইসলাম রেজু।

সিরাজগঞ্জ-১: কনক চাঁপা/নাজমুল হাসান রানা, সিরাজগঞ্জ-২: ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু/রুমানা মাহমুদ, সিরাজগঞ্জ-৩: আইনুল হক/আবদুল মান্নান তালুকদার, সিরাজগঞ্জ-৪: রফিকুল ইসলাম খান (জামায়াত), সিরাজগঞ্জ-৫: আমিরুল ইসলাম খান আলিম/রকিবুল করিম খান পাপ্পু, সিরাজগঞ্জ-৬: কামরুদ্দিন ইয়াহিয়া খান মজলিস/এম এ মুহিত।
বরিশাল বিভাগ
বরিশাল-১: জহির উদ্দিন স্বপন/আবদুস সোবহান, বরিশাল-২: সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল/সর্দার শরফুদ্দিন সান্টু/শহীদুল হক জামাল, বরিশাল-৩: সেলিমা রহমান/জয়নুল আবেদীন, বরিশাল-৪: মেজবাহ উদ্দিন ফরহাদ/রাজিব আহসান, বরিশাল-৫: মজিবুর রহমান সরোয়ার/এবাদুল হক চাঁন, বরিশাল-৬: আবুল হোসেন/রশিদ খান।পটুয়াখালী-১: আলতাফ হোসেন চৌধুরী, পটুয়াখালী-২: শহীদুল আলম তালুকদার/মুনির হোসেন/সুরাইয়া আক্তার চৌধুরী/সালমা আলম, পটুয়াখালী-৩: হাসান মামুন/মো. শাহজাহান, পটুয়াখালী-৪: এ বি এম মোশাররফ হোসেন/মনিরুজ্জামান মনির।
ঝালকাঠি-১: শাহজাহান ওমর/ রফিকুল ইসলাম জামাল, ঝালকাঠি-২: ইলেন ভুট্টো/জেবা আহমেদ খান। বরগুনা-১: মতিউর রহমান তালুকদার/নজরুল ইসলাম মোল্লা, বরগুনা-২: নুরুল ইসলাম মনি।
ভোলা-১: আন্দালিব রহমান পার্থ (বিজেপি)/গোলাম নবী আলমগীর, ভোলা-২ হাফিজ ইব্রাহিম/রফিকুল ইসলাম মনির, ভোলা-৩: হাফিজ উদ্দিন আহমেদ/কামাল হোসেন, ভোলা-৪ নাজিম উদ্দিন আলম/নুরুল ইসলাম নয়ন।
পিরোজপুর-১ আসন শরিককে ছেড়েছে বিএনপি। পিরোজপুর-৩ আসনে মনোনয়নের চিঠি পেয়েছেন রুহুল আমিন দুলাল ও শাহজাহান মিয়া।
ঢাকা বিভাগ
ঢাকা-২: আমান উল্লাহ আমান, ঢাকা-৩: গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঢাকা-৬: আ ন ম সাইফুল ইসলাম, ঢাকা-৮: হাবিব উন নবী খান সোহেল, ঢাকা-৯: মির্জা আব্বাস, ঢাকা-৪: সালাউদ্দিন আহমেদ, ঢাকা-৫: নবী উল্লাহ নবী, ঢাকা-৬: কাজী আবুল বাশার, ঢাকা-১৩: আব্দুস সালাম।
ময়মনসিংহ বিভাগ
ময়মনসিংহ-৪: এ জেড এম জাহিদ হোসেন/ওয়াহাব আকন্দ নেত্রকোণা-১: আবদুল করিম আব্বাসী (এলডিপি)।
সিলেট বিভাগ
সিলেট-১: ইনাম আহমেদ চৌধুরী, সিলেট-২ তাহসীনা রুশদির লুনা। মৌলভীবাজার-১: মৌলভীবাজার-২: সুলতান মোহাম্মদ মনসুর।
চট্টগাম বিভাগ
কুমিল্লা-১ ও ২: খন্দকার মোশাররফ হোসেন, কুমিল্লা-৭: রেদোয়ান আহমেদ (এলডিপি)।নোয়াখালী-১: মাহবুব উদ্দিন খোকন, নোয়াখালী-২: জয়নুল আবদীন ফারুক, নোয়াখালী-৩: বরকত উল্লাহ বুলু নোয়াখালী-৪: মোহাম্মদ শাহজাহান, নোয়াখালী-৫: মওদুদ আহমদ, নোয়াখালী-৬: ফজলুল আজিম।
লক্ষ্মীপুর-১: শাহাদত হোসেন সেলিম (এলডিপি), লক্ষ্মীপুর-২: আবুল খায়ের ভুঁইয়া, লক্ষ্মীপুর-৩: শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী, লক্ষ্মীপুর-৪: আশরাফউদ্দিন নিজান।
ফেনী-১: বেগম খালেদা জিয়া, ফেনী-২: জয়নাল আবেদীন (ভিপি জয়নাল), ফেনী-৩: আব্দুল আউয়াল মিন্টু। চট্টগ্রাম-৮: এম মোর্শেদ খান, চট্টগ্রাম-১৪: অলি আহমেদ (এলডিপি)।
বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের পাশাপাশি কামাল হোসেনের নেতৃত্বে গঠিত জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট এবার ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে ভোট করার ঘোষণা দিয়েছে। তবে বিএনপি মোট কতটি আসনে নিজেদের প্রার্থী দিচ্ছে আর কতটি আসন জোট শরিকদের জন্য ছাড়ছে- সে বিষয়ে আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষণা এখনও আসেনি।